ঢাকা, বৃহস্পতিবার ২২, এপ্রিল ২০২১ ১৬:৫৩:৫৫ পিএম

First woman affairs online newspaper of Bangladesh : Since 2012

Equality for all
Amin Jewellers Ltd. Gold & Diamond
শিরোনাম
স্বাস্থ্যবিধি না মানার কারণেই করোনার দ্বিতীয় ঢেউ: স্বাস্থ্যমন্ত্রী দেশে পুরুষের চেয়ে নারীর গড় আয়ু বেশি ১১ কোটি টাকা প্রণোদনা পাচ্ছেন ২৬৭৯ নার্স ভারতে একদিনে ৩ লাখ ১৬ হাজার শনাক্তে ফের বিশ্ব রেকর্ড বিশ্বে করোনায় মৃত্যু ছাড়াল ৩০ লাখ ৭১ হাজার

ব্রাজিলিয়ান ভাষায় ধ্বনিত হলো বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ

অনলাইন ডেস্ক | উইমেননিউজ২৪

প্রকাশিত : ০৩:১৪ পিএম, ৯ মার্চ ২০২১ মঙ্গলবার

ব্রাজিলিয়ান পর্তুগীজ ভাষায় ধ্বনিত হলো বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ

ব্রাজিলিয়ান পর্তুগীজ ভাষায় ধ্বনিত হলো বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ

দক্ষিণ আমেরিকার রাষ্ট্র ব্রাজিলে বাংলাদেশ দূতাবাস বাঙালি জাতির ইতিহাস ও অস্তিত্বের সাথে ওতপ্রোতভাবে মিশে থাকা বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের কালজয়ী ভাষণের ব্রাজিলিয়ান পর্তুগীজে অনুবাদের মাধ্যমে এ ঐতিহাসিক ভাষণের ৫০তম বার্ষিকী উদযাপন করেছে।

ব্রাজিলের সার্বিক করোনাভাইরাস পরিস্থিতির ক্রমাবনতির প্রেক্ষিতে এবং দেশটির সরকারের এ সংক্রান্ত স্বাস্থ্য নির্দেশনার অনুসরণে সীমিত পরিসরে যথাযথ মর্যাদায় দিবসটি উদযাপিত হয়।

আজ মঙ্গলবার ঢাকায় প্রাপ্ত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ব্রাজিলের ২১ কোটি জনগণ এবং এদেশে বসবাসকারী লাখ লাখ বিদেশির কাছে বঙ্গবন্ধুর উদাত্ত শব্দমালা পৌঁছে দেয়ার লক্ষ্যে দূতাবাস বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ ব্রাজিলীয় পর্তুগীজ ভাষায় অনুবাদের উদ্যোগ নেয়। ভাষণ অনুবাদের এ দায়িত্ব দেওয়া হয় ব্রাজিলের রিও গ্রান্ডে দো সুল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাষাতত্ত্বের প্রথিতযশা অধ্যাপিকা ড. রবার্ট সার্টোরি লুসো ডি কার্বালোকে। তিনি অত্যন্ত আন্তরিকতার সাথে এই দ্বায়িত্ব পালন করেন।

জাতির পিতার দৃপ্ত উচ্চারণের ৫০ বছর পর ৭ মার্চ ২০২১ তারিখে ব্রাসিলিয়াস্থ’ বাংলাদেশ দূতাবাসে ঐ যুগান্তকারী ভাষণের ব্রাজিলীয় পর্তুগীজ অনুবাদটি পাঠ করা হয়। প্রথমবারের মতো বঙ্গবন্ধুর ভাষণের মর্ম উপলব্ধি করতে পেরে উপস্থিত ব্রাজিলীয় অতিথিরা অনেকেই আবেগপ্রবণ হয়ে ওঠেন।

উল্লেখ্য, অধ্যাপিকা ড. রবার্ট সার্টোরি জুম প্ল্যাটফর্মেূর মাধ্যমে পোর্ত আলেগ্রো শহর থেকে দূতাবাসের অনুষ্ঠানে যোগদান করেন।

স্বাধীনতার সূবর্ণজয়ন্তী ও বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকীর মাহেন্দ্রক্ষণে দূতাবাস কর্তৃক আগামী ১৭ মার্চ জাতির পিতার জন্ম দিবসে এই অনুবাদটির পুস্তিকা প্রকাশনা উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। এই প্রকাশনার মাধ্যমে ব্রাজিলের নাগরিকরা বঙ্গবন্ধুর সাথে সম্যক পরিচিতি লাভ করবে বলে দূতাবাস আশা প্রকাশ করছে।