ঢাকা, বুধবার ০৮, এপ্রিল ২০২০ ২০:৪৫:০৪ পিএম

First woman affairs online newspaper of Bangladesh : Since 2012

Amin Jewellers Ltd. Gold & Diamond
শিরোনাম
করোনা রোগী শনাক্ত: রাজধানীতে বস্তি লকডাউন শবে বরাতের নামাজ ঘরে, কবরস্থান ও মাজারে যাওয়া নিষেধ নতুন আক্রান্ত ৫৪ জনের মধ্যে ৩৯ জনই ঢাকার করোনা: দেশে আরও ৩ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ৫৪ বঙ্গবন্ধুর খুনি মাজেদের ফাঁসির পরোয়ানা ব্রাহ্মণবাড়িয়া: শ্বাসকষ্টে প্রবাসীসহ ২ জনের মৃত্যু

করোনা প্রতিরোধে বাড়াতে হবে শরীরের ইমিউন সিস্টেম

ডেস্ক রিপোর্ট | উইমেননিউজ২৪

প্রকাশিত : ১২:৫৩ পিএম, ২৪ মার্চ ২০২০ মঙ্গলবার

ছবি: ইন্টারনেট

ছবি: ইন্টারনেট

মহামারি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত পুরো বিশ্ব । এখন পর্যন্ত বিশ্বের ১৯৪ টি দেশ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে।  করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে শরীরে ইমিউন সিস্টেম বৃদ্ধিতে জোর দিচ্ছেন স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ । যে উপায়ে আপনি আপনার শরীরের ইমিউন সিস্টেম বাড়াতে পারেনঃ-

ভালো ঘুম: দিন-রাত্রির যে চক্র ((সারকাডিয়ান সার্কেল) তা ইমিউন সিস্টেমে  গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। রাতের ঘুমের প্রথম প্রহরে টি-কোষ এবং সাইটোকিনের পরিমাণ চূড়ান্ত পর্যায়ে পৌঁছে থাকে। টি-কোষ হচ্ছে  রক্তের সে ধরনের শ্বেতকনিকা যেগুলো ব্যাকটেরিয়া-ভাইরাসের বিরুদ্ধে শরীরের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাকে শানিত করে এবং সাইটোকিন এসবের বিরুদ্ধে যুদ্ধে প্রদাহমূলক প্রতিক্রিয়ার সূচনা করে।

দীর্ঘস্থায়ী মানসিক চাপ কমিয়ে রাখুন: দীর্ঘ দিন মানসিক চাপে থাকলে দীর্ঘস্থায়ী প্রদাহের সৃষ্টি হয় এবং অটো-ইমিউন রোগ সৃষ্টি করে। স্ট্রেস হরমোন হচ্ছে কর্টিসল – এটি সাইটোকিন তৈরি করে যা ইমিউনিটিকে ক্ষতিগ্রস্ত করে।

নিয়মিত ব্যায়াম করুন: শরীর চর্চা শুধু মানসিক চাপ কমায় তা নয়, এটি ইমিউন সিস্টেমকেও প্রতিরক্ষা দিয়ে থাকে। Aging cell- জার্নালে প্রকাশিত এক গবেষণা নিবন্ধে দেখানো হয়েছে যে, যথেষ্ট পরিমাণে ব্যায়াম বা শরীর চর্চা বা কায়িক শ্রম ইমিউন সিস্টেমের ক্ষয় প্রতিহত করে।

ভিটামিন-সমৃদ্ধ খাবার খান: ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিহত করতে ভিটামিন-এ তাৎপর্যপূর্ণ ভূমিকা রাখে। কডলিভার অয়েল বা ভিটামিন-এ ক্যাপসুল প্রাকৃতিক ওষুধ হিসেবে বহুল ব্যবহৃত। হাম (মিজলস) চিকিৎসায় এর সফল ব্যবহার রয়েছে। ভিটামিন-এ পাবেন যেসব খাবারে সেগুলো- মিষ্টি আলু, সবুজ শাকসবজি, লাল মরিচ, গাজর, লাউ, ফুটি/খরমুজ, পেঁপেঁ, আম, লেটুস, গুড়া লঙ্কা, এপ্রিকট ইত্যাদিতে। তীব্র প্রদাহের সময় স্বল্প সময়ের জন্য শিরায় ভিটামিন-এ ইনজেকশন দেয়া হয়ে থাকে।

-জেডসি